রাজ্য সরকারি প্রকল্প ব্যবসা প্রযুক্তি টেলিকম চাকরির খবর অর্থনীতি স্কলারশিপ
Advertisements

30 Rs Biryani: মাত্র ৩০ টাকায় চিকেন বিরিয়ানি, ১৫ টাকায় চিকেন চাপ, পাড়ার এই দোকানে উপচে পড়েছে ভিড়

30 Rs Biryani: বর্ধমানে বিরিয়ানি পাওয়া যাচ্ছে মাত্র ৩০ টাকায়! আর এই শুনেই বর্ধমানে দৌড় দিচ্ছেন বিরিয়ানিপ্রেমীরা। এমনটা হবে নাই বা কেন? বহু জায়গায় আজকাল সবজি ভাতের দামই ৩৫-৪০ টাকা…

30 Rs Biryani: বর্ধমানে বিরিয়ানি পাওয়া যাচ্ছে মাত্র ৩০ টাকায়! আর এই শুনেই বর্ধমানে দৌড় দিচ্ছেন বিরিয়ানিপ্রেমীরা। এমনটা হবে নাই বা কেন? বহু জায়গায় আজকাল সবজি ভাতের দামই ৩৫-৪০ টাকা হয়ে যেতে দেখা গেছে। এই অবস্থায় বিরিয়ানিপ্রেমীদের কাছে ৩০ টাকার বিরিয়ানি মানে তো স্বর্গ! বর্ধমানে আজকাল চর্চায় শুধু এই ৩০ টাকার বিরিয়ানিই। এর ক্রেজের দৌলতে সম্প্রতি খবরের শিরোনামে বর্ধমানের নাম।

বর্ধমান শহরে এই বিরিয়ানির দোকানটি খুলেছেন স্থানীয় যুবক প্রদীপ রাউত (Pradip Raut)। এটিকে দোকান বললে একটু ভুল হবে। এটি আসলে একটা ছোটমতো স্টল। এই স্টলে বিরিয়ানি ও বিরিয়ানি সংক্রান্ত ডিশ উপলব্ধ থাকায় তা শুধুমাত্র বিরিয়ানি স্টল নামে পরিচিতি লাভ করেছে। এই বিরিয়ানির স্টলটি বর্ধমান শহরের কার্জনগেটের কাছে কোর্ট কম্পাউন্ডে অবস্থিত। আদালত চত্বরের এই বিরিয়ানির স্টলে বিরিয়ানি ছাড়াও আলাদা করে চিকেন চাপও পাওয়া যাচ্ছে। যার দাম মাত্র ১৫ টাকা।

30 Rs Biryani

প্রদীপের কথায় জানতে পারা যায়, তিনি বিরিয়ানির দোকান শুরু করার আগে একটি বেসরকারি সংস্থার কর্মচারী ছিলেন। বর্তমানে তিনি থাকেন বর্ধমানের বাদামতলায়। তাঁর দোকানের জন্ম চলতি বছরে জুলাই মাসে। চাকরি ছেড়ে তিনি এই মাসের শুরুতেই নেমে পড়েন বিরিয়ানির দোকান চালানোর কাজে। তিনি বলেন, “আমি শ্রীরামপুরে ৩০ টাকায় বিরিয়ানি খেয়েছিলাম। এরপরেই আমার ইচ্ছে হয় একটি দোকান খোলার। এরপরে ৩রা জুলাই তারিখে মাত্র ২ কেজি বিরিয়ানি নিয়েই নতুন কর্মজীবনের সফরের সূচনা করলাম। বর্তমানে ৮ কেজি বিরিয়ানি বানানোর পরেও গ্রাহকদের চাহিদার যোগান দিতে পারছি না। সবই শেষ হয়ে যাচ্ছে”।

30 Rs Biryani

জানা গেছে, স্টলের কাছে দাঁড়িয়ে খেলে গ্রাহকদের ৩০ টাকা দিতে হয়। কিন্তু পার্সেল চাইলে ৪০ টাকা দাম হয়ে যায়। এই স্টলে চিকেন চাপের পাশাপাশি ডিমও পাওয়া যায়। ১টা ডিমের দাম ১০ টাকা। প্রদীপ স্বয়ং জানিয়েছেন যে, দোকান খোলার আগে থেকেই এই স্টলের বাইরে ভিড় লেগে যায়। এক ক্রেতার কথায়, “এত কম দামে সুস্বাদু বিরিয়ানি আর কোথাও পাইনি”। অপর এক ক্রেতার কথায়, “এর আগে অনেকে দোকানে বিরিয়ানি খেয়েছি। এখানে কম দামে ভালো স্বাদের বিরিয়ানি বিক্রি হয়। স্বাদ চেখে তবেই কিনেছি”।